চায়না ভিসা এপলিকেশন শুরু অক্টোবর ৯ তারিখ খেকে

Asking Price:
Tk. 11,000


Seller:
Member since 23 Jul 2019
Location:
Mirpur, Dhaka
Payment:
Face-to-face transaction
Return:
Not offered
Do not pay before verifying
    Category: Everything Else > Services > Travel Agents > > চায়না ভিসা এপলিকেশন শুরু অক্টোবর ৯ তারিখ খেকে

    DESCRIPTION ( চায়না ভিসা এপলিকেশন শুরু অক্টোবর ৯ তারিখ খেকে )

    চীন দেশে যাবার সুযোগ আসবে ৯ তারিখ খেকে।
    চায়না ভিসা এপলিকেশন শুরু অক্টোবর ৯ তারিখ খেকে,
    আপনার ভিসার প্রয়োজনে এখনি যোগাযোগ করুন-০১৭০৭৫২৬৪০৬

    চীন এমন একটি দেশ যার নাম শুনেই আপনার এই দেশে যাওয়ার ইচ্ছে তৈরি হবে। এখানে এত এত দর্শনীয় স্থান, ট্যুরিস্ট এট্রাকশন এবং টুরিস্ট এক্টিভিটি রয়েছে যে লম্বা ট্যুরের প্লান না করে গেলে চীনের অনেক কিছুই মিস করবেন আপনি। হাজার বছরের পুরনো এন্টিক জিনিস দেখার রয়েছে চীনে। চীনের গ্রেট ওয়াল, মন্দিরের চূড়ার ন্যায় পাহাড়, চীনের মনোরম গ্রাম যেখানে লোকে সময় হিসেব করে চলেনা, চমৎকার সব জলাধার, বৌদ্ধমন্দির এবং মাঝে মাঝে একাকী সন্তের মত দণ্ডায়মান প্রাচীন দুর্গ – সব মিলিয়ে চীন একাই যেন একটি বড় টুরিস্ট প্যাকেজ। ল্যান্ডস্কেপের জন্যও চীন অনেক বিখ্যাত, আলফা থেকে ওমেগা পর্যন্ত এর বিস্তার। তিব্বতের নীলকান্তমণি বর্ণের লেক, মঙ্গোলিয়ার অসাধারণ মরুভূমি, হংকং এর হিপ-হপ আইল্যান্ড, রূপকথার মত সুন্দর ইয়াংশুয়ো, দক্ষিণের ধানের বিশাল উঠান, হলদে সরিষা ক্ষেতে ঢাকা ইয়ুইয়ান, বিখ্যাত গ্রেট ওয়ালের কোল ঘেঁষে দাঁড়িয়ে থাকা পাহাড়চূড়া, সবুজ বাঁশ বাগান…এমন আরও কত কিছু দেখার রয়েছে চীনে।

    চীনের যে শহরগুলোতে ঘুরতে যাবেন

    সাংহাই: চায়নার সবচেয়ে বড় সিটি সাংহাই এবং পৃথিবীর দ্বিতীয় বৃহত্তম টাওয়ারটি এই শহরেই অবস্থিত। মাত্র ৩০ বছর আগে সাংহাই যে হোটেলগুলোতে টিনের ট্রেতে খাবার পরিবেশন করা হত আজ সেই সাংহাই এর নিজস্ব মিশেলিন (Michelin) ডাইনিং গাইড তৈরি হয়েছে। দি বান্ড, ইউইয়েন গার্ডেন এন্ড বাজার, এম ৫০ (M50), ফ্রেন্স কনসেশন, ওয়েস্ট লেক, জিঙ্গান টেম্পল প্রভৃতি সাংহাই এর উল্লেখযোগ্য টুরিস্ট এট্রাকশন।

    হংকং: হংকং সিটির আইকনিক স্কাইলাইন, লিজেন্ডারি কিচেন, কাছাকাছি লাগোয়া উঁচু উঁচু বিল্ডিং প্রভৃতি আপনাকে কাছে টানবে নেশার মত। স্টার ফেরি, ভিক্টোরিয়া চূড়া, ম্যান মো টেম্পল, টেম্পল স্ট্রিট নাইট মার্কেট, হংকং ওয়েটল্যান্ড পার্ক প্রভৃতি হংকং এর গুরুত্বপূর্ণ টুরিস্ট স্পট।

    বেইজিং: জগতে এমন জায়গা কম কম আছে যেখানে বেইজিং এর মত এতো বেশি ঐতিহাসিক নিদর্শন আছে। প্রাচীনকালের স্থাপত্যের সংরক্ষণাগার তো বটেই, বিশ্বের সবচেয়ে আধুনিক বিল্ডিং এরও আঁতুড়ঘর এই বেইজিং।

    চেংদ্যু: উঁচু পাহাড়শ্রেণীর মাঝে সাজানো হুয়াংলং কিংবা এডভেঞ্চারে পূর্ণ ড্রাগন ন্যাশনাল পার্ক, লাসা’র শ্বাসরুদ্ধ পাহাড় ট্রেকিং, স্বচ্ছ জলের মধ্যে র‍্যাফটিং (ভেলায় ভেসে বেড়ানো) চেংদ্যুর সেরা টুরিস্ট এট্রাকশন।

    মেকাও: একদা পর্তুগীজদের দ্বারা নিয়ন্ত্রিত দক্ষিণ চীনের এই শহরটি খুবই প্রাণবন্ত। গেমিং এ আসক্ত টুরিস্টদের জন্য মেকাও এক স্বর্গ। বিভিন্ন ধরণের শো, বিনোদন পার্ক এবং রাতের ট্যুরের জন্য মেকাও বিখ্যাত।

    গুয়াংঝুও: গুয়াংদং প্রদেশের রাজধানী গুয়াংঝুও চীনের তৃতীয় বৃহত্তর শহর ও একটি বাণিজ্যিক কেন্দ্র। পার্ল নদীর তীরে অবস্থিত এই শহরটি শত বছর ধরে হংকং এর একটি গুরুত্বপূর্ণ বন্দর হিসেবে ব্যবহৃত হত।

    কিভাবে যাবেন

    ঢাকা থেকে চীনের একাধিক শহরে বিমানে করে যাওয়া যায়। নন স্টপ ও মাল্টি স্টপ দু ধরণেরই ফ্লাইট রয়েছে চীনের বিভিন্ন শহরে। শহর ভেদে চীনের বিভিন্ন স্টেটে যেতে আপনার খরচ পরবে ৩০,০০০ টাকা থেকে ৬০,০০০ টাকার মধ্যে।


    ClickBD - Buy anything and get the best price in Bangladesh